Bangla Runner

ঢাকা , রবিবার, ১৪ জুলাই, ২০২৪ | বাংলা

শিরোনাম

অনুর্ধ্ব ত্রিশ বয়সীরা বক্তব্য দিয়ে জিতুন ৬০ হাজার টাকার পুরস্কার রম্য বিতর্ক: ‘কুরবানীতে ভাই আমি ছাড়া উপায় নাই!’ সনাতনী বিতর্কের নিয়মকানুন গ্রীষ্ম, বর্ষা না বসন্ত কোন ঋতু সেরা?  বিভিন্ন পত্রিকায় লেখা পাঠানোর ই-মেইল বিশ্বের সবচেয়ে দামি ৫ মসলা Important Quotations from Different Disciplines স্যার এ এফ রহমান: এক মহান শিক্ষকের গল্প ছয় সন্তানকে উচ্চ শিক্ষত করে সফল জননী নাজমা খানম ‘সুলতানার স্বপ্ন’ সাহিত্যকর্মটি কি নারীবাদী রচনা?
Home / ক্যাম্পাস

৫ম সম্মেলনে

ছাত্রফ্রন্টের নতুন সভাপতি জয়, সা.সম্পাদক প্রিন্স

নিজস্ব প্রতিবেদক
বুধবার, ২৫ সেপ্টেম্বর, ২০১৯ Print


94K

শিক্ষার ব্যয় বৃদ্ধি রোখা ও গণতান্ত্রিক শিক্ষাঙ্গন প্রতিষ্ঠার দাবিতে আন্দোলনের ধারাবাহিকতায় সমাজতান্ত্রিক ছাত্র ফ্রন্ট এর ৫ম কেন্দ্রীয় সম্মেলনের সমাবেশ অনুষ্ঠিত হয়েছে ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ে। সমাবেশ শেষে আল কাদেরী জয়কে সভাপতি, শ্যামল বর্মণকে সহ-সভাপতি, নাসির উদ্দিন প্রিন্সকে সাধারণ সম্পাদক ও রুখসানা আফরোজ আশাকে সাংগঠনিক সম্পাদক করে ২১ সদস্য বিশিষ্ট কমিটি দেওয়া হয়েছে।  

গতকাল বুধবার সকাল ১১টায় অপরাজেয় বাংলার পাদদেশে সম্মেলনের উদ্বোধন করেন স্বৈরাচার বিরোধী আন্দোলনের শহীদ ডা. সামছুল আলম মিলনের শ্রদ্ধেয় মা সেলিনা আক্তার।

উদ্বোধনী বক্তব্যে তিনি বলেন, ক্ষমতার লোভে ক্ষমতাসীন দলগুলো মিলনের স্বপ্নের সাথে বার বার বিশ্বাসঘাতকতা করেছে। মিলন স্বৈরাচার ও শোষণমুক্ত বাংলাদেশ চেয়েছিল। শ্রমজীবী মানুষের অধিকার চেয়েছিল। কিন্তু এরা ক্ষমায় থেকে লুটপাটের বাংলাদেশ তৈরি করেছে। এই ভ্রষ্টনীতির বিরুদ্ধে লড়াই করা আজ সময়ের দাবি। সমাজতান্ত্রিক ছাত্র ফ্রন্টের সম্মেলনে আগত হাজার হাজার তরুণ-যুবক আমাকে নতুন করে আশাবাদী করে তুলেছে। তোমাদের সংগ্রামের মধ্য দিয়েই আমি মিলনের স্বপ্নের বাস্তবায়ন দেখতে চাই। 

উদ্বোধন শেষে একটি র‌্যালী বের করা হয়।  র‌্যালীটি ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয় ক্যাম্পাস প্রদক্ষিণ করে শাহবাগ মোড়, কাঁটাবন মোড়, বাটা সিগন্যাল, সায়েন্সল্যাব-নিউমার্কেট-নীলক্ষেত হয়ে ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয় খেলার মাঠে এসে শেষ হয়।

পরে রাজু ভাষ্কর্যে  আলোচনা সভা করার  কথা থাকলেও প্রবল বৃষ্টির কারণে বিশ্ববিদ্যালয়ের জিমনেশিয়ামে সন্ধ্যা ৬টায় আলোচনা সভা অনুষ্ঠিত হয়। সমাজতান্ত্রিক ছাত্র ফ্রন্ট কেন্দ্রীয় কমিটির সভাপতি ইমরান হাবিব রুমনের সভাপতিত্বে ও সাধারণ সম্পাদক নাসির উদ্দিন প্রিন্সের সঞ্চালনায় অনুষ্ঠিত সমাবেশে প্রধান অতিথি হিসেবে বক্তব্য রাখেন বাসদের সাধারণ সম্পাদক কমরেড খালেকুজ্জামান।

খালেকুজ্জামান বলেন, “শিক্ষাকে মৌলিক অধিকার হিসেবে স্বীকৃতি না দিয়ে বাণিজ্যিক পণ্যে পরিণত করায় শিক্ষা বাণিজ্য ব্যপক রূপ লাভ করেছে। বিশ্ববিদ্যালয়গুলো জ্ঞান চর্চা ও সৃষ্টির কেন্দ্র না হয়ে বিদ্যা বিক্রির প্রতিষ্ঠানে পরিণত হয়েছে। সবার জন্য শিক্ষার পরিবর্তে টাকা যার শিক্ষা তার-নীতি প্রবর্তন করায় শিক্ষা সাধারণ মানুষের নাগালের বাইরে চলে যাচ্ছে। গোটা সমাজের দুর্নীতি শিক্ষা প্রতিষ্ঠানগুলোকেও দুর্নীতিগ্রস্থ করে ফেলেছে। মাদক আর মাস্তানী ছাত্র-যুব সমাজের সংগ্রামী চরিত্রকে ধ্বংস করছে।”

তিনি বলেন, “যুগে যুগে ছাত্র-যুবকরাই দেশের সংকটকালে প্রতিরোধ সংগ্রামে এগিয়ে আসে। বর্তমানের এই সংকটেও সমাজতান্ত্রিক ছাত্র ফ্রন্টকেই সে ঐতিহাসিক দায়িত্ব পালন করতে হবে।”

তিনি আরও বলেন, “রাজনীতিতে ফ্যাসিবাদ, অর্থনীতিতে লুণ্ঠন-পাচার, কৃষকের ফসলের দাম না পাওয়া, শ্রমিকের নায্য মজুরি না পাওয়া, যুবকদের কাজ না পাওয়া আর একদল মানুষের হাতে বিপুল সম্পদের পাহাড় গড়ে উঠছে পুঁজিবাদী শোষণমূলক ব্যবস্থার কারণে। শিক্ষার আন্দোলনকে তাই শোষণমূলক ব্যবস্থা পরিবর্তনের আন্দোলনের সাথে যুক্ত করতে হবে।”

তিনি আরও বলেন, ছাত্র আন্দোলনকে শোষণহীন সমাজ নির্মাণের আন্দোলনের পথে পরিচালনা করার মাধ্যমে শিক্ষা ও নৈতিকতার সংকটকে দূরীভূত করা সম্ভব।”

সমাবেশে আরো বক্তব্য রাখেন বাসদ কেন্দ্রীয় কমিটির সদস্য বজলুর রশীদ ফিরোজ, কমরেড রাজেকুজ্জামান রতন, ভারতের সাবেক ছাত্রনেতা বি. আর. মঞ্জুনাথ, নেপালের এএনএনআইএসইউ (রেভুলিউশনারী) এর ভাইস চেয়ারম্যান তিলকরাজ ভান্ডারী, শ্রীলঙ্কার এসএসইউ এর ইন্টারন্যাশনাল কমিটির সদস্য শানিকা হাসিনি সিলভা, স্টুডেন্ট এন্ড ইওথ উইং অবসোস্যালিস্ট পার্টি অব মালয়েশিয়া এর অর্গানাইজার ভেনুসা প্রিয়া, লীগ অব ফিলিপিনো স্টুডেন্টস এর ন্যাশনাল স্পোক পার্সন ক্লারা লেনিনা তাগোয়া, সম্মেলন প্রস্তুতি কমিটির আহ্বায়ক আল কাদেরী জয়।

আরও পড়ুন আপনার মতামত লিখুন

© Copyright -Bangla Runner 2024 | All Right Reserved |

Design & Developed By Web Master Shawon